মিজানুর রহমান মিলন,
শাজাহানপুর (বগুড়া) প্রতিনিধি:
বগুড়ার শাজাহানপুর উপজেলায় গ্যাস ট্যাবলেট সেবন করে এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। রবিবার (১৭ডিসেম্বর) সকাল ৯টার দিকে মাদলা ইউনিয়নের দরিনন্দ গ্রামে নিজ বাড়িতে এই ঘটনা ঘটে। নিহত যুবক ওই গ্রামের শফিকুল ইসলামের ছেলে তারেক(১৬)। পিতার কাছে নতুন মোবাইল ফোন কিনে চেয়ে না পাওয়ায়, গ্যাস ট্যাবলেট সেবন করে বলে নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে। বিকেল ৫টা পর্যন্ত লাশ বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে রয়েছে।

নিহতের পিতা শফিকুল ইসলাম বলেন, তারেককে বিদেশে পাঠানোর জন্য বেশ কিছুদিন ধরে কাগজ প্রস্তুত করার চলছিল। রোববার সকালে সে আমার কাছে নতুন একটি মোবাইল ফোন কিনে চেয়েছিল। তাঁর ব্যবহৃত ফোনটি শনিবার ভেঙে ফেলে। বিদেশে পাঠাব বলে নতুন ফোন কিনে দেই নাই। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে রবিবার সকাল ৯টার দিকে সবার অগোচরে গ্যাস ট্যাবলেট সেবন করে। বেলা ১১টার দিকে আমরা বিষয়টি জানতে পেরে দ্রুত বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেই। সেখানে কিছুক্ষণের মধ্যেই তাঁর মৃত্যু হয়।

মাদলা ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য আব্দুল আলিম বলেন, পিতার কাছ থেকে নতুন মোবাইল ফোন না পেয়ে তারেক গ্যাস ট্যাবলেট সেবন করে ।

মাদলা ইউনিয়নের বিট পুলিশিংয়ের দায়িত্বে থাকা উপপরিদর্শক রেজা বলেন, প্রাথমিক ভাবে গ্যাস ট্যাবলেট খেয়ে আত্বহত্যা করেছে বলেই জানতে পেরেছে। বিষয়টি সদর পুলিশ দেখবেন।

পোস্টটি শেয়ার করুনঃ