স্টাফ রিপোর্টার :

মৌলভীবাজার জেলার কমলগঞ্জ উপজেলার কৃতি সন্তান, সংযুক্ত আরব আমিরাতের খোরফাক্কান এলাকার বিশিষ্ট ব্যবসায়ী, সমাজ সেবক, আরব উল্লাহ ও মরিয়ম বেগম ট্রাস্টের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান, বাংলাদেশ বিজনেস কাউন্সিল ফুজিরাহ শাখার অর্থ সম্পাদক, খোরফাক্কান আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি, কমলগঞ্জ প্রবাসী কল্যাণ সমিতি সংযুক্ত আরব আমিরাতের সভাপতি শেখ জহির উদ্দিনের বিরুদ্ধে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে মিথ্যা অপপ্রচারের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়েছেন।

বুধবার মোবাইল ফোনে সাংবাদিকদের সাথে আলাপকালে তিনি এই প্রতিবাদ জানান।

কমলগঞ্জ প্রবাসী কল্যাণ সমিতি সংযুক্ত আরব আমিরাতের সভাপতি শেখ জহির উদ্দিন বলেন, দীর্ঘদিন ধরে আমিরাতে বসবাস করছি এবং বিভিন্ন সামাজিক ও রাজনৈতিক সংগঠনে সততার সাথে কাজ করছি। এছাড়া কমলগঞ্জ সমিতির প্রথম কমিটির মেয়াদ শেষ হওয়ার পর আমাকে সভাপতি নির্বাচিত করে নতুন কমিটি ঘোষনা করা হয়। গত কিছুদিন থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে কমলগঞ্জ সমিতি ও আমাকে নিয়ে বিভিন্ন আইডি থেকে মিথ্যা, বানোয়াট ও কুরুচিপূর্ণ পোষ্ট করা হচ্ছে। আমি এসব মিথ্যা, বানোয়াট পোষ্টের তিব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।

তিনি আরো বলেন, এসব মিথ্যা ও বানোয়াট তথ্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে পোষ্ট করায় আমার মানহানি হচ্ছে। অবিলম্বে হোয়াটসআপ গ্রুপ ও ফেসবুকে এসব মিথ্যা প্রচার বন্ধ না হলে আমিরাতের আইনের প্রতি শ্রদ্ধা রেখে সাইবার মামলা করতে বাধ্য হব।

কমলগঞ্জ সমিতির প্রধান পৃষ্টপোষক আব্দুল হক শায়েস্তা জানান, আমি সংগঠনের শুরু থেকে মানবতার কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছি। একটা সংগঠনের মূল শক্তি হচ্ছেন একজন সভাপতি। একজন দায়িত্ববান ও সমাজসেবক হিসেবে কমলগঞ্জ সমিতির সভাপতি শেখ জহির উদ্দিন পরিচিত। প্রবাসীদের মরদেহ দেশে প্রেরণে সংগঠনের পাশাপাশি শেখ জহির উদ্দিন বার বার এগিয়ে আসেন। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অতিবিলম্বে এসব মিথ্যা ও বানোয়াট কথা বন্ধ না করা হলে সংগঠনের নিয়ম অনুযায়ী আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

পোস্টটি শেয়ার করুনঃ