মোঃ আকরাম হোসেন, স্টাফ রিপোর্টার:
পাঁচ লক্ষ টাকা চুরি করা চোর শাহীন কে আশুলিয়া থেকে গ্ৰেফতার করেছেন উওরা পশ্চিম থানা পুলিশ।
গত শুক্রবার (১৮ডিসেম্বর২০২৩) রাত ৯:৩০ সময়ে আশুলিয়ার কাইচাবাড়ী এলাকার মেসার্স বাদল এন্টারপ্রাইজের মালিক মোঃ বাদল শেখ উত্তরা পশ্চিম থানাধীন ৭ নং সেক্টরস্থ ৬ নং রোডের ১১ নং বাসায় ব্যাবসায়ী আলোচনায় কিছু সময় অবস্থান কালে নিজ মালিকাধীন প্রাইভেটকারের ভিতর একটি কাগজের শপিং ব্যাগে নগদ পাঁচ লক্ষ টাক রেখে যায়।

ফিরে এসে দেখতে পায় গাড়ির দরজা খোলা টাকার ব্যাগ ও চালক নেই। পাশে থাকা সিসি ক্যামেরার ফুটেজে দেখা যায়
গাড়ির চাবিটি সিটের উপরে রেখে দিয়ে,গাড়ির চালকই টাকার ব্যাগ নিয়ে পালিয়েছে।

তাৎক্ষণিক আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল হয়ে গত ১৮ ইং ডিসেম্বর বাদল এন্টারপ্রাইজ এর মালিক ভুক্তভোগী বাদল শেখ রাজধানীর উত্তরা পশ্চিম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।অভিযোগ টি পর্যবেক্ষণ পূর্বক এজাহার হিসাবে গন্য করিয়া একটি মামলা রুজু করা করেন।

বৃহস্পতিবার ( ১১ ডিসেম্বর ২০২৩) আশুলিয়া থানাধীন কুরগাঁও এলাকায়,উত্তরা পশ্চিম থানা পুলিশ ও আশুলিয়া থানা পুলিশ যৌথ অভিযান চালিয়ে এ আসামী কে গ্ৰেফতার করেন।

গ্রেফতারকৃত আসামী গাড়ী চালক শাহীন হোসেন(২৭)ঝিনাইদহ জেলার কালিগঞ্জ থানার মহিষাডেরা গ্রামের আমিরুল ইসলামের পুত্র। সে দীর্ঘদিন যাবৎ স্ব-পরিবারে আশুলিয়ার কুরগাঁও আমতলা কবরস্থান রোড ওসমানের ভাড়া বাড়ীতে থাকতো।গত দেড় বছর ধরে ১৯ হাজার টাকা বেতনে ব্যবসায়ী মোঃ বাদল শেখ এর গাড়ির চালক হিসেবে কাজ করছিলো।

উত্তরা পশ্চিম থানার এস আই মোঃ হানিফ উদ্দিন মন্ডল বলেন,পাঁচ লক্ষ টাকা চুরি হওয়া টাকা উদ্ধার করার ভিত্তিতে (১১ ডিসেম্বর (২০২৩) আমরা অভিযানে নামি।তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় ও গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ঢাকা জেলার আশুলিয়া থানার কুরগাঁও এলাকা থেকে চোর শাহীন কে গ্রেফতার করি।আসামির বিরুদ্ধে আইনানুগ কার্যক্রম শেষে আদালতে প্রেরন করা হবে।

পোস্টটি শেয়ার করুনঃ