আহসান হাবিব নিজস্ব পতিনিধিঃ

টঙ্গীতে ২১ বছর বয়সী এক তরুণীকে বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় বুধবার সন্ধ্যায় ভুক্তভোগী তরুণী টঙ্গী পূর্ব থানায় মামলা দায়ের করলে, উপ-পরিদর্শক সুমন খান ঘটনার সাথে জড়িত ধর্ষণকারী ও তার সহযোগীকে গ্রেফতার করে।
টঙ্গীতে ২১ বছর বয়সী এক তরুণীকে বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় বুধবার সন্ধ্যায় ভুক্তভোগী তরুণী টঙ্গী পূর্ব থানায় মামলা দায়ের করলে, উপ-পরিদর্শক সুমন খান ঘটনার সাথে জড়িত ধর্ষণকারী ও তার সহযোগীকে গ্রেফতার করে।
গ্রেফতারকৃতরা হলেন, মাদারীপুর জেলা সদরের ঘটকচর গ্রামের মৃত আব্দুল খালেক ঢালীর ছেলে সোহাগ (২৩) ও ময়মনসিংহ জেলার ত্রিশাল থানার সেনবাড়ী এলাকার রফিকুল ইসলামের ছেলে মামুন (১৯)। তাড়া উভয়ে টঙ্গীবাজার গরু হাটা এলাকায় বসবাস করতো।

অভিযোগ সুত্রে জানা যায়, পূর্ব পরিচয়ের সুত্র ধরে গত ২৭ সেপ্টেম্বর রাত নয়টার দিকে আসামী সোহাগ ও মামুন ভিখটিম তরুনীকে ডেকে নিয়ে টঙ্গী বাজার গরু হাটা এলাকার সোহাগের বাসায় নিয়ে যায়। এসময় সোহাগ ও ভুক্তভোগী তরুণীকে বাসার ভেতরে রেখে বাইরে থেকে দরজা বন্ধ করে দেয় সহযোগী মামুন। পরে আসমী সোহাগ ভুক্তভোগী তরুনীকে বন্ধ ঘরের ভিতর জোর পূর্বক ধর্ষণ করে। একপর্যায়ে রাত এগারোটার দিকে মামুন বাইরে থেকে দরজা খুলে দিলে ঘটনাস্থল ত্যাগ করেন ওই ভুক্তভোগী।

টঙ্গী পূর্ব থানার উপ-পরিদর্শক সুমন খান জানায়, থানায় অভিযোগের ভিত্তিতে উর্ধতন কর্মকর্তার নির্দেশে বুধবার রাতে ঘটনার সাথে জড়িত দুই আসামীকে গ্রেফতার করা হয়েছে।
টঙ্গী পূর্ব থানার অফিসার ইনচার্জ আশরাফুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানায়, এঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করেছেন ভুক্তভোগী তরুণী। ঘটনার সাথে জড়িত দুই আসামীকে গ্রেফতার করে বিজ্ঞ আদলতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

পোস্টটি শেয়ার করুনঃ