স্বপন কুমার রায়, খুলনা ব্যুরো প্রধান:
জাতির স্মৃতিতে চির অম্লান ২৬ মার্চ মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস ২০২৪ যথাযোগ্য মর্যাদা ও ভাবগাম্ভীর্যে উদযাপনের লক্ষ্যে দাকোপ উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে জাতীয় কর্মসূচির সাথে সংগতি রেখে বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানমালার মধাদিয়ে ঘটা করে উদযাপন করা হয়েছে। ২৬ মার্চ গৌরবান্বিত এই দিনটিতে দাকোপ উপজেলা পরিষদ চত্বরে প্রত্যুষে ৩১ বার তোপধ্বনির মাধ্যমে দিবসের শুভ সূচনা করা হয়। সূর্যোদয়ের সাথে সাথে সকল সরকারি, আধা সরকারি, স্বায়ত্তশাসিত স্ব স্ব প্রতিষ্ঠানে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করা হয়।সকাল সাড়ে সাতটায় মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতিসৌধে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়। সকাল আটটায় আনুষ্ঠানিক ভাবে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করে একযোগে সম্মিলিতভাবে জাতীয় সংগীত পরিবেশন, বীর মক্তিযোদ্ধা,পুলিশ, আনসার ভিডিপি,বিএনসিসি,ফায়ার সার্ভিস ওসিভিল ডিফেন্স, বাংলাদেশ স্কাউট, রোভার স্কাউট, গার্লস গাইড কতৃক বর্ণাঢ্য কুচকাওয়াজ, শিশু সমাবেশ ও পুরস্কার বিতরণ করা হয়। সুবিধা জনক সময়ে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবসের তাৎপর্য তুলেধরে বিভিন্ন অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। সকাল দশটায় মুক্তিযুদ্ধ বিত্তিক চলচিত্র প্রদর্শন,উম্মুক্ত স্হানে প্রমান্য চলচ্চিত্র, দুর্নীতি বিরোধী তথ্যচিত্র প্রদর্শ করাহয়। সকাল এগারো টায় বীর মুক্তি যোদ্ধা ও শহিদ পরিবারের সদস্য দের সম্মানে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। হাসপাতালে, এতিমখানায় ও থানা হাজতখানায় উন্নত মানের খাবার পরিবেশন করা হয়।সুবিধা জনক সময়ে উপজেলার সকল মসজিদ, মন্দির, গীর্জা,প্যাগোডা ও অন্যান্য উপাসনালয়ে জাতির শান্তি ও অগ্রগতি এবং মুক্তিযুদ্ধের শহিদদের আত্মার শান্তি কামনা করে মোনাজাত, প্রার্থনা, ও মিষ্টি বিতরণ করা হয়। চালনা পৌরসভার সহ উপজেলা পরিষদের অভ্যন্তরে গুরুত্বপূর্ণ সড়কে দিন ব্যাপী সঠিক মাপের জাতীয় পতাকা ও বিভিন্ন রঙের পতাকা দ্বারা সড়ক সজ্জিত করা হয়।। এছাড়াও উপজেলা শিল্পকলা একাডেমিতে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছাত্র ছাত্রীদের অংশগ্রহণে মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক চিত্রাঙ্কন ও শিশুদের রচনা প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়।

পোস্টটি শেয়ার করুনঃ