মোঃ কামাল হোসেন, বিশেষ প্রতিনিধি:
যশোরের অভয়নগরে ঘটে গেল এক হৃদয় বিদারক ঘটনা! মায়ের লাশ রেখে ছেলে এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নিল। মায়ের মৃত্যুতে ছেলে হাসান গাজী বাধভাঙ্গা কান্নায় ভেঙ্গে পড়লেও সকালে মায়ের লাশ রেখে যথাসময়ে কেন্দ্রে হাজির হয়ে এসএসসি পরিক্ষা দেয়। পরীক্ষা শেষে বাড়ি ফিরে মায়ের জানাজাসহ দাফন সম্পন্ন করে। স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মা’ নুরজাহান বেগমের এর মরদেহ বাসায় রেখে রবিবার (১৮ ফেব্রুয়ারি’২৪) চলমান এসএসসি পরীক্ষা দিলেন হাসান গাজী(১৪) এবারের এসএসসি পরীক্ষার্থী। শনিবার (১৭ফেব্রুয়ারি’২৪) রাত ১১.৪৫ টায় হাসানের মা অভয়নগর উপজেলার শুভরাড়া ইউনিয়নের বাশুয়াড়ী গ্রামের বাসিন্দা নুরজাহান বেগম দীর্ঘদিন অসুস্থ হয়ে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে মারা যান। তিনি বাশুয়াড়ী গ্রামের দিনমজুর মোঃ বিল্লাল গাজীর স্ত্রী। ছেলে হাসান বাশুয়াড়ী মাধ্যমিক বিদ্যালয় থেকে এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নিচ্ছেন। তার পরীক্ষার কেন্দ্র পড়েছে একই উপজেলার সিংগাড়ী মডেল মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে। শুভরাড়া ইউনিয়নের ইউপি সদস্য মোঃ নুরুল ইসলাম বলেন, মোঃ বিল্লালের স্ত্রী, হাসানের মা নুরজাহান দীর্ঘদিন বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত ছিলেন, শনিবার রাত ১১.৪৫ এ হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে নিজ বাড়িতে মারা যান তিনি। তার নামাজে জানাজা রবিবার জোহর বাদ অনুষ্ঠিত হয়েছে। মৃত মা’র লাশ বাড়িতে রেখেই মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) পরীক্ষায় অংশ নিতে হয়েছে হাসানকে। অভয়নগর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মো. শহিদুল ইসলাম বলেন, হাসান গাজী বাশুয়াড়ী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের মেধাবী ছাত্র, মা মৃত্যুবরণ করার পরেও রবিবার বাংলা ২য়পত্র পরীক্ষা দিয়েছে।

পোস্টটি শেয়ার করুনঃ